সর্বশেষ আপডেট :March 30, 2020
Ovinews24

ফোবানা সম্মেলনে মাহমুদুন্নবী’কে ‘শ্রদ্ধাঞ্জলী সম্মাননা’, গ্রহণ করবেন ফাহমিদা সামিনা

August 27, 2019

অভি মঈনুদ্দীন : বাংলাদেশের সঙ্গীতাঙ্গন যাদের হাত ধরে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে গেছে বছরের পর বছর। যাদের গানের মাঝে এখনো শ্রোতারা আবেগে নিজেক হারিয়ে খোঁজেন তাদের মধ্যে অন্যতম একজন শিল্পী হলেন মাহমুদুন্নবী। তিনি নেই। কিন্তু তার মৃত্যুর প্রায় ত্রিশ বছর পর তার গানের মধ্যদিয়েই তিনি বাঁচার মতোই বেঁচে আছেন। সত্যিকারের শিল্পীরা এভাবেই বেঁচে থাকেন যুগের পর যুগ ধরে। একজন মাহমুদুন্নবীর আমাদের সঙ্গীতাঙ্গনে যে অবদান আছে তাই নিয়েই যদি সঠিকভাবে গবেষণা হতো তাহলে হয়তো তার সেই গবেষণা’কে কেন্দ্র করেই হয়তো এই প্রজন্মের কোন শিল্পী ডক্টরেটও অর্জন করতে পারতো। কিন্তু উদ্যোগ আর শিল্পীদের আগ্রহের অভাবের কারণেই বিষয়গুলো এড়িয়ে যায় বারবার। এমনটি শুধু মাহমুদুন্নবীর ক্ষেত্রেই নয়, চলে যাওয়া আরো এমন অনেক সঙ্গীতশিল্পী, অভিনয়শিল্পী আছেন যাদের নিয়ে গবেষণা হতে পারে রাষ্ট্রীয় পর্যায় থেকে। শুধু তাই নয় শিল্পীর জীবদ্দশায় শিল্পীকে যথাযথ সম্মানে ভূষিত করাও রাষ্ট্র এবং তার শিল্পী পরিবারেই দায়িত্বেও মধ্যে পড়ে। আগামী ১ সেপ্টেম্বর যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে ৩৩’তম ফোবানা সম্মেলনে বাংলাদেশের বরেণ্য সঙ্গীতশিল্পী প্রয়াত মাহমুদুন্নবী’কে শ্রদ্ধা জানিয়ে তারই যোগ্য উত্তরসূরী ফাহমিদা নবী ও সামিনা চৌধুরীর হাতে তুলে দেয়া হবে ‘শ্রদ্ধাঞ্জলী সম্মাননা’। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ফাহমিদা নবী।

ফাহমিদা নবী বলেন,‘ বেঁচে থাকলে সঙ্গীত জীবনে তার পথচলা হতো সত্তর বছর। সঙ্গীতে আব্বার সাত দশক দেখে যেতে পারেননি। কিন্তু তারপরও তার বিদেহী আত্নার শান্তি কামনা করে তাকে যে শ্রদ্ধাঞ্জলি সম্মাননা দেয়া হচ্ছে , এটা আমাদের পরিবারের জন্য অনেক বড় পাওয়া। আমি, আমরা সবাই কৃতজ্ঞ ফোবানা পরিবারের প্রতি। আমরা আমাদের জীবন চলার পথে এখনো প্রতিটি মুহুর্তে আব্বাকে ভীষণ মসি করি, অনুভব করি প্রতিটি পদে পদে। আব্বা শুধু আমাদেরই নয় বাংলাদেশের সঙ্গীত পরিবারের গর্ব। আমি, আমরা গর্ব করে বলতে পারি আমরা মাহমুদুন্নবীর সন্তান। এই গর্ব নিয়েই বাঁচতে চাই সারাটা জীবন।’ ফাহমিদা নবী জানান তারা দুই বোন আগামী ১০ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরবেন। মাহমুদুন্নবীর জন্ম ১৯৩৬ সালের ১৬ ডিসেম্বর এবং তিনি ইন্তেকাল করেন ১৯৯০ সালের ২০ ডিসেম্বর। এদিকে জুলফিকার রাসেলের কথায় ও নচিকেতার সুরে ফাহমিদা ও সামিনা ‘এক আকাশের গান’ নামে আটটি গানের একটি অ্যালবাম করেছিলেন। গানগুলোর সঙ্গীতায়োজন করেছিলেন পঞ্চম। কিন্তু গানগুলো কবে প্রকাশ হবে সে বিষয়ে কোন নিশ্চয়তা দিতে পারেননি ফাহমিদা নবী। উল্লেখ্য ফাহমিদা নবী এরইমধ্যে মঞ্জুরুল আলম চৌধুরীর কথায় ও তার নিজেরই সুরে মা’কে নিয়ে একটি গান গেয়েছেন।
ছবি : গোলাম সাব্বির

Leave a Reply

এটাও পছন্দ করতে পারেন

‘আমার মনে’ একসঙ্গে প্রথম ইউসুফ-ঝিলিক

জামাল হোসেনের কথায় করোনা নিয়ে আসিফের ‘আসবে বিজয়’

পুতুলের হলোনা তাকে কাছে পাওয়া

পণ্ডিত অজয় চক্রবর্ত্তীর কাছে তালিম নিচ্ছেন অনন্যা

বঙ্গবন্ধু’কে গরীব সঞ্জয়ের শ্রদ্ধাঞ্জলি ‘বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ’

মারুফের কথায় ইউসুফের সুরে গাইলেন সৈয়দ আব্দুল হাদী

Copy link
Powered by Social Snap