সর্বশেষ আপডেট :July 2, 2020
Ovinews24

উপস্থাপনায় আনজাম মাসুদের সাফল্যের দুই যুগ

May 30, 2020

অভি মঈনুদ্দীন : দীর্ঘ প্রায় দুই যুগ ধরে সাফল্যের সঙ্গে উপস্থাপনা নিয়মিত করে যাচ্ছেন দুইবার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পাওয়া নন্দিত উপস্থাপক আনজাম মাসুদ। গেলো বছর বাংলাদেশ টেলিভিশনে তার হাত ধরে বিরাট সাফল্য পাওয়া জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘পরিবর্তন’ নিজ ইচ্ছেতেই ছেড়ে দেবার পর থেকে তিনি নিজস্ব ব্যবসার কাজ ও ইভেন্ট’র কাজ নিয়েই বেশি ব্যস্ত হয়ে উঠেন। আপাতত করোনা’র এই ক্রান্তিকালে আনজাম মাসুদ নিজের ব্যস্ততা একটু কমিয়ে দিলেও কিছুদিন পর থেকে আবারো তিনি নিজের কাজে ব্যস্ত হয়ে উঠবেন বলে জানালেন তিনি। এদিকে আজ আনজাম মাসুদের জন্মদিন। গেলো ৬/৭ বছরের মতোই এবারও তার জন্মদিন নিয়ে কোনই পরিকল্পনা নেই। আনজাম জানান, ঘরেই পরিবারের সাথে সময় কাটবে তার। আনজাম মাসুদ বলেন,‘ সত্যি বলতে কী আমার আব্বা ইন্তেকাল করেছিলেন এই মে মাসেই। তাই আব্বা মারা যাবার পর থেকে আমার জন্মদিন আর কোনভাবেই আমি উদযাপন করিনা। নিয়মিত দিন যেভাবে কাটে ঠিক সেভাবেই কাটে নিজের জন্মদিন। সবার কাছে দোয়া চাই আল্লাহ যেন সবসময় ভালো রাখেন, সুস্থ রাখেন। কারণ সুস্থ থাকতে পারটাই জীবনের সবচেয়ে বড় নিয়ামত।’ আনজাম মাসুদই বাংলাদেশের একমাত্র উপস্থাপক যিনি আন্তর্জাতিক অঙ্গনে দুইবার জাতীয়ভাবে উপস্থাপনার জন্য সম্মাননা লাভ করেছেন। প্রথমবার তিনি ২০১৮ সালের জুন মাসে ‘টেলিসিনে অ্যাওয়ার্ড’র ১৭ বছরের ইতিহাসে ভারত থেকে শ্রেষ্ঠ উপস্থাপক হিসেবে আনজাম মাসুদ টেলিসিনে অ্যাওয়ার্ড’-এ ভূষিত হন। পরবর্তীতে ২০১৯ সালে আনজাম মাসুদ আবারো ভারত থেকেই ‘প্রগতি বাংলা অ্যাওয়ার্ড ’ -এ ভূষিত হন আনজাম মাসুদ।

আনজাম মাসুদ বলেন,‘ এটা সত্যি যে আমার এই যে আন্তর্জাতিক সম্মাননা প্রাপ্তি, এই প্রাপ্তির খবরে বেশি খুশি হতেন আমার বাবা। আমার মাও ভীষণ খুশি আমার এই প্রাপ্তিতে। আমার এই সম্মাননা প্রাপ্তি আমার দেশেরই অর্জন বলে আমি মনেকরি।’ ১৯৯৬ সাল থেকে আনজাম মাসুদ একজন উপস্থাপক হিসেবে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছেন। সেসময় তিনি বিটিভিতে ‘বিদ্যাঙ্গন’ নামের একটি অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করতেন। এরপর একই চ্যানেলে ‘আজকাল’ নামের একটি অনুষ্ঠানের উপস্থপপনা করতেন। পরবর্তীতে এটিএন বাংঘলায় ‘এক দুই তিন’ এবং ‘আজ কাল পরশু’ অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেন। বিটিভির টানা ছয়টি ঈদ ‘আনন্দ মেলা’ অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেন আনজাম মাসুদ। সেই সময় তিনি নান্দনিক উপস্থপনার জন্য বেশ প্রশংসিত হন। দীর্ঘ দুই বছরেরও বেশি সময় তিনি বিটিভি’তে ‘পরির্বতন’ অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা, গ্রন্থনা, উপস্থাপনা ও নির্দেশনা দেন। দেশের মধ্যে উপস্থাপনায় স্বীকৃতি স্বরূপ তিনি অর্জন করেছেন সর্বোচ্চ চারবার বাচসাস পুরস্কার’সহ বিসিআরএ, সিজেএফবি, বাবিসাস, শেরেবাংলা স্বর্ণ পদক। আনজাম মাসুদের গ্রামের বাড়ি গাজীপুরের কামারিয়া গ্রামে। তার বাবা প্রয়াত আব্দুস সিদ্দিক মাস্টার ও মা আনোয়ারা বেগম। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগ থেকে মাস্টার্স করেছিলেন।

ছবি : মোহসীন আহমেদ কাওছার

Leave a Reply

এটাও পছন্দ করতে পারেন

আজ ৭৯’তে পা রাখছেন ফেরদৌসী রহমান…

মা’কে ছাড়া কুমার বিশ্বজিৎ’র বিবর্ণ জন্মদিন

৫০ পূর্ণ করছেন নাইম, জন্মদিনে পরিবারের সঙ্গে

তবুও জন্মদিনের শুভেচ্ছা

শুভ জন্মদিন শাকিলা পারভীন

সংবাদ পাঠে মুন্নীর দুই দশক, ১২ বার শ্রেষ্ঠত্বর পুরস্কারে ভূষিত

Copy link
Powered by Social Snap